জাপানের Mitsubishi F2 হলো F-16 C/D ফাইটিং ফ্যালকনের উন্নত ভার্সন। যৌথভাবে যার ম্যানুফেকচারিং করেছে Mitsubishi এবং Lockheed Martin

ফাইটারটি খুবই ইফেক্টিভ ভাবে বানানো হয়েছে। এটি ৪র্থ প্রজম্নের মাল্টিরোল ফাইটার। এর উয়িং এরিয়া এফ-১৬ এর চাইতে ২৫ ভাগ বড়। ওজন কমানোর জন্য এতে গ্রাফাইট ইপক্সি ব্যাবহার করেছে লকহিড মার্টিন। কিছুদিন আগেই এতে XAMS-3 এন্টি শিপ মিসাইল লঞ্চ করা হয়েছে।

Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft with XAMS-3 Missile

এই ছবিটিতে আপনারা যে লাল এবং হলুদ রং এর মিসাইলটি দেখতে পাচ্ছেন সেটা হলো XAMS-3 যা কিছুদিন আগেই জাপান F-2 তে লঞ্চ করেছে। এটি ম্যানুয়েভার করা খুবই সহজ।

এর দাম বেশি হওয়ায় এখনো জাপান এর কোনো খরিদ্দার পায়নি তবে এর দামের যে মূল্য আছে সেটা বলাই বাহুল্য।

 

 

এবার সংক্ষেপে এই এয়ারক্রাফটি সম্পর্কে জেনে নিইঃ

ক্রুঃ ১ জন

দৈর্ঘ্যঃ ৫১ ফিট

প্রস্থঃ ৩৬.৪ ফিট

উচ্চতাঃ ১৬.৪ ফুট

সার্ভিস সিলিংঃ সর্বোচ্চ ১৮,০০০ মিটার উপর দিয়ে যেতে পারে

রেঞ্জঃ ৪,০০০ কি:মি

খালি অবস্থায় ওজনঃ ৯,৫০০ কেজি

টেক-অফের সময় সর্বোচ্চ ওজনঃ ২২,০০০ কেজি

পাওয়ারপ্লান্ট হিসাবে আছেঃ 1 × General Electric F110-GE-129 turbofan ইঞ্জিন

সর্বোচ্চ গতিঃ ম্যাক ২

উয়িং লোডিংঃ ১৫,০০০ কেজি

উয়িং এরিয়া ৩৪.৮৪

সার্ভিস ইয়ারঃ ২০০০ সাল

প্রোগ্রাম কস্টঃ ১২ বিলিয়ন ডলার

ইউনিট প্রতি মূল্যঃ ১৩০ মিলিয়ন (২০১৬)

এছাড়া এতে Mitsubishi AESA (Active Electronically Scanned Array)  J/APG-2 রাডার সিস্টেম ব্যাবহার করা হয়েছে। এখন পযন্ত ১৩০+ F-2 তৈরি হয়েছে (২০১৬)।

এই এয়ারক্রাফটির প্রধান ব্যবহারকারি Japan Air Self-Defense Force। সবমিলিয়ে এর মোট ৪টি প্রোটোটাইপ রয়েছে।

 

অস্ত্রশস্ত্র হিসেবে এতে আছে,

→২০ মি:মি এর একটি গান

→Mitsubishi AAM-3

→Mitsubishi AAM-4

→Mitsubishi AAM-5

→AIM-9 Sidewinder

→AIM-7 Sparrow

→ASM-1 and ASM-2 এন্টি-শিপ মিশাইল

→XAMS-3 এন্টি-শিপ মিশাইল

 

 

 

এয়ারক্রাফটির কিছু ছবিঃ

Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft’s Engine
Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft
Mitsubishi F-2 Aircraft

 

লেখায়ঃ ইমন

Advertisements